নিপুণের সঙ্গে অভিনয় করতে আপত্তি নেই জায়েদ খানের

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন শেষ হয়েছে গত ২৮ জানুয়ারি। কিন্তু সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে নিপুণ আক্তার ও জায়েদ খানের দ্বন্দ্ব আদালত পর্যন্ত গড়ায়। তবে গতকাল বুধবার (২ মার্চ) হাইকোর্টের রায় অনুযায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদে বসবেন জায়েদ খান।

এরই মাধ্যমে টানা তৃতীয়বারের মত সাধারণ সম্পাদকের চেয়ারে বসেছেন জায়েদ খান। হাইকোর্টের রায়ের পর এফডিসিতে ছুটে যান জায়েদ। শিল্পী সমিতি কার্যালয়ে গিয়ে সাধারণ সম্পাদকের চেয়ারে বসেন তিনি।

সাধারণ সম্পাদকের চেয়ারে বসে তিনি বলেন, আমি তো জোর করে চেয়ারে বসিনি। শিল্পীদের ভোটে নির্বাচিত হয়েছি। আদালত থেকেও রায় পেয়েছি। আমি সবসময় আদালতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলাম। সত্য সবসময় সুন্দর। সত্যের জয় হয়েছে।

জায়েদ খান বলেন, আমাকে বারবার চাপে রাখার জন্য, হয়রানি করার জন্য অন্য সংগঠনকে ব্যবহার করা হয়েছে। ১৮ সংগঠন আছে, সমিতির উন্নয়নে কাজ করার কথা। কিন্তু তারা করেনি। কেন আমাকেই টার্গেট করা হয়েছে জানি না।

এদিকে ভবিষ্যতে নিপুণের সঙ্গে অভিনয় করবেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, প্রযোজক চাইলে সম্ভব। আমার অভিমত জানতে চাইলে বলব, নিপুণের সঙ্গে আমি আগেও অভিনয় করেছি। প্রস্তাব পেলে ভবিষ্যতেও নিপুণের সঙ্গে অভিনয় করব। আমি তো শিল্পী, নির্বাচনের তিক্ততা মনে গেঁথে রাখব এটা মনে করছেন কেন? পেশাদার শিল্পীরা এসব মনে রাখে না।